হোম »  লিভিং হেলথি »  রোজ হাঁটুন, ৩০ মিনিটের হাঁটা বদলে দেবে আপনার স্বাস্থ্য সংক্রান্ত নানান সমস্যা

রোজ হাঁটুন, ৩০ মিনিটের হাঁটা বদলে দেবে আপনার স্বাস্থ্য সংক্রান্ত নানান সমস্যা

যারা অতিরিক্ত ওজন কমাতে চান, কার্ডিওভাসকুলার ফিটনেস বৃদ্ধি করতে চান, পেশীশক্তি এবং ধৈর্য বৃদ্ধি করতে চান তাঁদের জন্য হাঁটা অবশ্যিক

রোজ হাঁটুন, ৩০ মিনিটের হাঁটা বদলে দেবে আপনার স্বাস্থ্য সংক্রান্ত নানান সমস্যা

হাঁটা একটি দুর্দান্ত উপকারী ব্যায়াম

হাইলাইট

  1. হাঁটা একটি গুরুত্বপূর্ণ ব্যায়াম
  2. ক্যালোরি পোড়াতে সাহায্য করে হাঁটা
  3. নিজের অনাক্রম্যতা বাড়াতে হাঁটা খুবই উপকারী

আমরা সবাই দৈনন্দিন জীবনে শারীরিক ক্রিয়াকলাপের গুরুত্ব সম্পর্কে সচেতন। নিয়মিত শারীরিক ব্যায়াম বিভিন্ন রোগ প্রতিরোধ করতে সহায়তা করে এবং প্রতিদিনের এই সুন্দর অভ্যাস আমাদের সচল রাখতেও সাহায্য করে। শারীরিক কার্যকলাপ বলতে কিন্তু কেবল ভারি ওয়ার্কআউটই নয়। এর থেকেও সহজ একটি উপায়ে আপনি শরীর সচল রাখতে পারেন। যেমন হাঁটা, জগিং, অ্যারোবিক্স বা এমনকি যোগ ব্যায়ামও হতে পারে।

প্রসাধনী কেনার সময় এই উপাদানগুলি ব্যবহার হয়েছে কিনা খতিয়ে দেখেন কি আপনি?

হাঁটার জন্য কোনও সরঞ্জাম প্রয়োজন হয় না এবং দিনের যে কোন সময় তা করা যেতে পারে। হাঁটা আপনার সামগ্রিক স্বাস্থ্যের উন্নতিতে সাহায্য করে। প্রতিদিন অন্তত ত্রিশ মিনিটের হাঁটা আপনার জীবনের উপর বিশাল প্রভাব ফেলতে পারে। হাঁটলে হাড় শক্তিশালী হয়; যারা অতিরিক্ত ওজন কমাতে চান, কার্ডিওভাসকুলার ফিটনেস বৃদ্ধি করতে চান, পেশীশক্তি এবং ধৈর্য বৃদ্ধি করতে চান তাঁদের জন্য হাঁটা অবশ্যিক। হাঁটা আপনাকে হৃদরোগের ঝুঁকি কমিয়ে দিতে পারে; রক্ত শর্করার মাত্রা, অস্টিওপরোসিস এবং এমনকি কিছু নির্দিষ্ট ক্যান্সারের ঝুঁকি কমাতেও সাহায্য করতে পারে।


হাঁটার সেরা ৮ টি স্বাস্থ্যসুবিধা কী কী:

1. হাঁটা যখন আপনি ওজন হারান চর্বিহীন পেশী সংরক্ষণ করতে সাহায্য করতে পারেন। এর ফলে আপনি ওজন কমানোর সময়ে ঘটে যাওয়া বিপাকীয় হারের ড্রপকে কমিয়ে আনতে সহায়তা করে। আপনার ওজন পরিচালনা করার জন্য এটি আরও সহজ করে তোলে

2. হাঁটা ক্যালোরি পোড়াতে সাহায্য করে, যা আপনাকে ওজন কমাতে এবং ওজন বাড়ার সমস্যা দূরে রাখতে সহায়তা করে

3. দৈনিক হাঁটা ক্লান্তিকর দিনের পরে আপনার মেজাজ ভালো রাখতে সাহায্য করে বা সমস্ত উদ্বেগ দূরে রাখতে পারে।

4. দৈনিক অন্তত ত্রিশ মিনিটের হাঁটা হৃদয় সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।

5. নিয়মিত শারীরিক ব্যায়াম রক্ত ​​শর্করার মাত্রা পরিচালনা করতে সাহায্য করে। হাঁটা একটি সহজ ব্যায়াম যা আপনার দৈনন্দিন রুটিনের মধ্যে অন্তর্ভুক্ত করা যেতে পারে। এটি ডায়াবেটিস পরিচালনা করতে সাহায্য করে।

6. আপনি যদি গাঁটের ব্যথা থেকে কষ্ট পান তাহলে আপনার জন্য হাঁটার মতো ব্যায়াম সর্বাপেক্ষা উপকারী। প্রতিদিন হাঁটা আপনার হাঁটু এবং কোমরের ব্যথা কমাতে সাহায্য করে। কারণ হাঁটার ফলে পেশীর তরল পদার্থের সঞ্চালনা ভালো হয় এবং পেশী শক্তিশালী করতে সাহায্য করে।

7. এই সহজ ব্যায়াম আপনার অনাক্রম্যতা ক্ষমতা বাড়াতে পারে। নিয়মিত হাঁটা ঠান্ডা এবং ফ্লু থেকেও আপনাকে রক্ষা করতে পারেন

8. হাঁটার ফলে আপনার পায়ের পেশী মজবুত হয়, পা শক্তিশালী হয়

oigm1aj

হাঁটলে আপনার পায়ের পেশী শক্তিশালী হয়

ফটো ক্রেডিট: iStock

মন্তব্য

স্বাস্থ্যের খবর সাথে সুস্থ থাকার জন্য অভিজ্ঞদের টিপস, ডায়েট পরিকল্পনা জানতে, লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

................... বিজ্ঞাপন ...................

................... বিজ্ঞাপন ...................

 

................... বিজ্ঞাপন ...................

-------------------------------- বিজ্ঞাপন -----------------------------------