হোম »  হার্ট »  বেড়াতে গিয়ে বুকে ব্যথা? নীরবে হার্ট অ্যাটাকের সম্ভাবনা কীভাবে বুঝবেন?

বেড়াতে গিয়ে বুকে ব্যথা? নীরবে হার্ট অ্যাটাকের সম্ভাবনা কীভাবে বুঝবেন?

যদি আপনি ভ্রমণ করেন এবং বুক, গলা, ঘাড়, পিঠে, পেটে বা কাঁধে ১৫ মিনিটেরও বেশি সময় ধরে ব্যথা অনুভব করেন তবে অবিলম্বে অ্যাম্বুলেন্স ডাকুন।

বেড়াতে গিয়ে বুকে ব্যথা? নীরবে হার্ট অ্যাটাকের সম্ভাবনা কীভাবে বুঝবেন?

দীর্ঘ দূরত্ব ভ্রমণের ফলে কার্ডিও ভাসকুলার রোগের জন্ম দিতে পারে এমন নানা উপসর্গও বাড়তে পারে

হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণ কখনই উপেক্ষা করা উচিত নয়। বিশেষত ভ্রমণের সময়। গবেষকরা বলছেন, কার্ডিওভাসকুলার রোগই (সিভিডি) কোনও ভ্রমণ চলাকালে মানুষের মৃত্যুর প্রধান কারণ। স্পেনের মালাগাতে অ্যাকিউট কার্ডিওভাসকুলার কেয়ার 2019 এ উপস্থাপিত একটি গবেষণায় ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছে যে, ভ্রমণের সময় হার্ট অ্যাটাকের পরে তড়িঘড়ি চিকিৎসা হলে দীর্ঘমেয়াদী ফলাফল কার্যকরী হতে পারে।

জাপানের জুনন্টেন্ডো বিশ্ববিদ্যালয়ের সহযোগী গবেষক লেখক রিয়োটা নিশিও বলেন, “যদি আপনি ভ্রমণ করেন এবং বুক, গলা, ঘাড়, পিঠে, পেটে বা কাঁধে ১৫ মিনিটেরও বেশি সময় ধরে ব্যথা অনুভব করেন তবে অবিলম্বে অ্যাম্বুলেন্স ডাকুন।” 

মহিলারা সপ্তাহে ৯ ঘণ্টারও বেশি কাজ করলে বাড়বেই ডিপ্রেশন! বলছে গবেষণা


নয়ডার যথার্থ হাসপাতালের সিনিয়র কার্ডিয়াক সার্জন দীপক খুরানা আইএএনএসকে বলেন, “দীর্ঘ দূরত্ব ভ্রমণের ফলে ডিহাইড্রেশন, পায়ে ক্র্যাম্পস, ইলেক্ট্রোলাইট ভারসাম্যহীনতা, ক্লান্তি, গতিজনিত অসুস্থতা দেখা যেতে পারে এবং এছাড়াও কার্ডিও ভাসকুলার রোগের জন্ম দিতে পারে এমন নানা উপসর্গও বাড়তে পারে।”

গবেষণার জন্য গবেষকরা ২৫৬৪ জন এমন রোগীদের বেছে নেন যাঁদের হার্ট অ্যাটাক হয়েছে আগে এবং যাঁদের ১৯৯৯ সাল থেকে ২০১৫ সালের মধ্যে স্টেন্ট percutaneous coronary intervention or PCI) বসিয়ে চিকিত্সা করা হয়েছে। হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার সময় ভ্রমণ করছিলেন এমন রোগীর সংখ্যা দেখা গিয়েছে ১৯২ জন (৭.৫ শতাংশ)। গবেষকরা বলেন, ভ্রমণকারীদের তখনও কম বয়স এবং তাঁদের এসটি-এলিভেশন মায়োকর্ডিয়াল ইনফার্কশনের (এসটিএমইআই) বেশি ঝুঁকি ছিল। এই রোগটি একটি গুরুতর হার্ট অ্যাটাক যাতে হৃদপিন্ডে রক্ত ​​সরবরাহকারী একটি প্রধান ধমনী অবরুদ্ধ হয়ে পড়ে। 

সদ্য মা হয়েছেন? ঘুমের ঘাটতি চলবে ছ'বছর

বয়স, লিঙ্গ, হাইপারটেনশন এবং ডায়াবেটিস ইত্যাদির কারণে অনেকগুলি কারণে বাড়িতে থাকাকালীন যে হার্ট অ্যাটাক হয় তার তুলনায় একটি ভ্রমণের সময় হার্ট অ্যাটাকে মৃত্যুর ঝুঁকি যদিও ৪২% কম।

নিশিও বলেন, “এটা জরুরি যে আপনার প্রথম হার্ট অ্যাটাক হয়ে যাবে, চিকিৎসাও শেষ হবে এবং বাড়ি ফিরবেন তখন আপনার জীবনধারাকে উন্নত করে এবং সম্ভাব্য প্রতিরোধক ওষুধ গ্রহণ করে আপনি কীভাবে দ্বিতীয় আক্রমণের ঝুঁকি কমাতে পারেন তা আপনার চিকিৎসকের সঙ্গে অবশ্যই পরামর্শ করুন।"



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)
মন্তব্য

স্বাস্থ্যের খবর সাথে সুস্থ থাকার জন্য অভিজ্ঞদের টিপস, ডায়েট পরিকল্পনা জানতে, লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

................... বিজ্ঞাপন ...................

................... বিজ্ঞাপন ...................

................... বিজ্ঞাপন ...................

-------------------------------- বিজ্ঞাপন -----------------------------------