হোম »  চিলড্রেন »  কোন বয়সের শিশুর কতক্ষণ টিভি বা মোবাইল ঘাঁটা নিরাপদ, জানাল WHO নির্দেশিকা

কোন বয়সের শিশুর কতক্ষণ টিভি বা মোবাইল ঘাঁটা নিরাপদ, জানাল WHO নির্দেশিকা

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানাচ্ছে, যে সমস্ত বাচ্চাদের বয়স এক বছরেরও কম তাঁদের মোটেই টিভির সামনে বা কম্পিউটার মোবাইলের সামনে বসিয়ে দেবেন না।

কোন বয়সের শিশুর কতক্ষণ টিভি বা মোবাইল ঘাঁটা নিরাপদ, জানাল WHO নির্দেশিকা

টিভিতে চোখ নয়, খেলার মাঠে দৌড়াতে হবে বাচ্চাদের

প্রযুক্তি এখন বাবা মায়ের কাজ অনেক সহজ করে দিয়েছে বলা যায়। দুরন্ত বাচ্চাকে খাওয়াতে হবে, হাতে ধরিয়ে দাও মোবাইল, বাচ্চা শান্ত মায়ের ভোগান্তি কম। বাচ্চার এক নাগাড়ে কান্না থামাতে হবে টিভি চালিয়ে দাও। বাচ্চার চোখ টিভিতে আটকে মানেই কান্না কম, মাবা মায়ের চাপ কম। বাচ্চা ভোলানোর যন্ত্র হিসেবে যত বেশি আমরা মোবাইল, টিভি ও কম্পিউটার ব্যবহার করছি শিশুদের স্বাস্থ্যের ততই অবনতি ঘটছে দ্রুত। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (World Health Organisation) সম্প্রতি জানিয়েছে যে, চুপ করে বসে টিভি মোবাইল দেখা নয়, বাচ্চা যত ছুটবে আর খেল্বে ততই ভালো থাকবে আগামীতে।

 ই-সিগারেটের শরণাপন্ন হয়েছেন? হাঁপানি সহ শ্বাসযন্ত্রের সমস্যায় ভুগতে পারেন

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নয়া নির্দেশিকাতে শিশুদের জিন্য কতখানি সময় টিভি দেখা বা কম্পিউটার দেখা উচিৎ তা বিশদে জানানো হয়েছে। ওই নির্দেশিকাতে স্পষ্টতই উল্লেখ করা হয়েছে যে, পাঁচ বছরের কম বয়স যে সব বাচ্চাদের টিভি মোবাইল বা কম্পিউটারে যতটা সম্ভব কম সময় কাটাতে হবে। যত কম টিভি বা মোবাইলে চোখ রাখবে বাচ্চারা তত ঘুম ভালো হবে তাঁদের। ভালো ঘুমের জন্য এবং স্বাস্থ্যবান হয়ে উঠতে গেলে টিভির পর্দা নয়, খেলার মাঠেই বেশি নিয়ে যেতে হবে বাচ্চাদের। 


গরমে মাইগ্রেনের চোখরাঙানি? রইল মুশকিল আসান

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানাচ্ছে, যে সমস্ত বাচ্চাদের বয়স একেবারেই কম, অর্থাৎ এক বছরেরও কম তাঁদের মোটেই টিভির সামনে বা কম্পিউটার মোবাইলের সামনে বসিয়ে দেবেন না। খাওয়াতে বসে শান্ত রাখার জন্য এত কম বয়সের বাচ্চাদের জন্য টিভি চালিয়ে দেওয়া বা সামনে মোবাইল চালিয়ে রেখে দেওয়ার আগে দু'বার ভাবুন। এখানেই শেষ নয়, এক বছরের বাচ্চাদের টিভি দেখানো বা কম্পিউটার গেম খেলতে দেওয়াটাও বন্ধ করুন। এতে মারাত্মক ক্ষতির মুখে অজান্তেই নিজের শিশুকে ঠেলে দিচ্ছেন আপনি। ২ থেকে ৪ বছর বয়সী শিশুদের বেশি করে শারীরিক ক্রিয়াকলাপে নিযুক্ত করা উচিত। অনেক বেশি খেলাধুলো এবং অন্যান্য কাজে নিজের শিশুকে নিযুক্ত করুন। সব শেষে দিনে খুব বেশি হলে এক ঘন্টা টিভি বা কম্পিউটারে মন দিতে দিন, তার বেশি একেবারেই নয়।



(এনডিটিভি এই খবর সম্পাদনা করেনি, এটি সিন্ডিকেট ফিড থেকে সরাসরি প্রকাশ করা হয়েছে।)
মন্তব্য

স্বাস্থ্যের খবর সাথে সুস্থ থাকার জন্য অভিজ্ঞদের টিপস, ডায়েট পরিকল্পনা জানতে, লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube

................... বিজ্ঞাপন ...................

................... বিজ্ঞাপন ...................

 

................... বিজ্ঞাপন ...................

-------------------------------- বিজ্ঞাপন -----------------------------------